Sat 4th Apr 2020, 5:49 am

গরু পারলে আমরা কেন কচুরিপানা খেতে পারব না: পরিকল্পনামন্ত্রী

গরু পারলে আমরা কেন কচুরিপানা খেতে পারব না: পরিকল্পনামন্ত্রী

বাংলামেইল ডটকম ডেস্ক

সবাইকে কচুরিপানা খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান। তিনি বলেছেন, গরু কচুরিপানা খেতে পারলে আমরা কেন পারব না? সোমবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে এনইসি-২ সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে কৃষি গবেষণায় অবদান রাখায় দুজনের হাতে পুরস্কার তুলে দিয়ে এ কথা বলেন তিনি। এ সময় পোস্ট হারভেস্ট কস্ট কমানোর জন্য গবেষণার সুপারিশ করেন মন্ত্রী। কৃষি গবেষণায় অবদান রাখার জন্য ড. এম এ রহীম এবং ড. শামসুল আলমকে সম্মাননা ক্রেস্ট তুলে দেন পরিকল্পনামন্ত্রী।

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, কচুরিপানা নিয়ে কিছু করার যায় কি-না। কচুরিপানার পাতা খাওয়া যায় না কোনো মতে? গরু তো খায়। গরু খেতে পারলে আমরা খেতে পারব না কেন? এ বিষয়ে গবেষণারও তাগিদ দেন মন্ত্রী।

এসময় তিনি সব ধরনের কৃষিপণ্যের সুষ্ঠু ব্যবহার নিশ্চিত করার কথাও বিশেষভাবে উল্লেখ করেন।

এদিকে, বিকেলে পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের এনইসি সম্মেলন কক্ষে ‘জনশুমারি ও গৃহণনা ২০২১’ প্রকল্প ঢাকা বিভাগে সফল করতে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভা করেন পরিকল্পনামন্ত্রী।

সভায় পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান পরিসংখ‌্যান নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে বলে স্বীকার করে বলেন, আগামী বছরের জনশুমারি হবে নিখুঁত। আমাদের পরিসংখ্যান নিয়ে এর আগে নানা প্রশ্ন উঠেছে। তবে এবার জনশুমারি ও গৃহগণনা নিয়ে কোন প্রশ্ন থাকবে না।

তিনি বলেন, দেশের উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণে নিখুঁত পরিকল্পনার কোনো বিকল্প নেই। এবার গুণগত মান ঠিক করেই জনশুমারি ও গৃহগণনা প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে। পরিসংখ্যান বিশ্বমানের পর্যায়ে নিয়ে যাব।

সভায় ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার মো. মোস্তাফিজুর রহমানের সভাপত্বিতে বিবিএস মহাপরিচালক মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম, প্রকল্প পরিচালক মো. জাহিদুল হক সরদারসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

Comments